বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ০৫:২৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) অতিরিক্ত কমিশনার ও গোয়েন্দা শাখার (ডিবি) প্রধান মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ বলেছেন, সংঘর্ষ-ভাঙচুরের ঘটনায় অভিযান চালিয়ে আমরা অনেককে গ্রেফতার করেছি। তারা আমাদের অনেক নাম দিয়েছে। যারা জড়িত সকলের নাম আছে। সময় হলে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেব। বুধবার (১৭ জুলাই) বিকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় ভিসি চত্বরে সাংবাদিকদের সামনে তিনি এসব কথা বলেন। হারুন বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা রেলের স্লিপার খুলতে পারে না, মেট্রো স্টেশন ভাঙচুর করতে পারে না, হাইওয়েও আটকাতে পারে না। বিশেষ একটি মহল তাদের ওপর ভর করে এমন কার্যক্রম চালাচ্ছে। জড়িত সবার নাম আছে, সময় হলে ব্যবস্থা: ডিবি হারুন কোটা আন্দোলনের কর্মসূচি বিএনপি-জামায়াত ঠিক করে দিচ্ছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী কোটা সংস্কার আন্দোলন সাধারণ ছাত্রদের হাতে নেই ঢাকায় বৃহস্পতিবার মুক্তিযোদ্ধা সমাবেশের ডাক হল ছাড়ছেন ঢাবি শিক্ষার্থীরা ঢাবি ক্যাম্পাসজুড়ে পুলিশ, হলগুলো ফাঁকা সারা দেশে ‘কমপ্লিট শাটডাউন’ ঘোষণা আন্দোলনকারীদের হত্যাকাণ্ড ও অনভিপ্রেত ঘটনায় বিচার বিভাগীয় তদন্ত করা হবে: প্রধানমন্ত্রী আদালতের রায় আসা পর্যন্ত শিক্ষার্থীদের ধৈর্য ধরার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

শ্রীলঙ্কাকে ১২-০ গোলে হারিয়ে ফাইনালে বাংলাদেশ

ভয়েসবাংলা প্রতিবেদক / ১০৭ বার
আপডেট : সোমবার, ২০ ডিসেম্বর, ২০২১

অনূর্ধ্ব-১৯ নারী সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে যেতে হলে বাংলাদেশের প্রয়োজন ছিল ১ পয়েন্ট। তবে ড্র নয়, পুরো তিন পয়েন্ট নিয়েই ফাইনাল নিশ্চিত করেছে স্বাগতিকরা। আগামী ২২ ডিসেম্বর শিরোপার জন্য ভারতের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ।

ঢাকার কমলাপুরে বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ মোস্তফা কামাল স্টেডিয়ামে রবিবার (১৯ ডিসেম্বর) রাউন্ড রবিন লিগের শেষ ম্যাচে আফিদা খন্দকার ও শাহেদা আক্তার রিপার হ্যাটট্রিকের সুবাদে শ্রীলঙ্কাকে ১২-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে বাংলাদেশ। মেয়েদের পারফরম্যান্সে খুব খুশি কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন।

চার ম্যাচে তিন জয় ও এক ড্রতে ১০ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে বাংলাদেশ। সমান ম্যাচে ভারত ১ পয়েন্ট কম নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে অবস্থান করছে। নেপাল ৭, ভুটান ৩ ও শ্রীলঙ্কা কোনও পয়েন্ট না পেয়েই টুর্নামেন্ট থেকে বিদায় নিয়েছে।

ম্যাচের পুরো সময় শ্রীলঙ্কার অর্ধে খেলা হয়েছে। একাদশে পাঁচটি পরিবর্তন আনা বাংলাদেশের দাপট চলেছে শেষ পর্যন্ত। ২২ দিনের অনুশীলন করে ঢাকায় আসা লঙ্কানদের সামনে পেয়ে গোলবন্যায় ভাসিয়েছেন আনুচিং-ঋতুপর্ণারা।

প্রথমার্ধে চার গোলে এগিয়ে ছিল বাংলাদেশ। ম্যাচ শুরুর ২ মিনিটে আনুচিং মোগিনি গোলের সূচনা করেন। ৭ মিনিটে ঋতুপর্ণা বাঁ-পায়ের কোনাকুনি শটে ব্যবধান ২-০ হয়। ১৬ মিনিটে ডান প্রান্ত দিয়ে শাহেদা আক্তার দুই ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে স্কোরলাইন ৩-০ করেন। বিরতির তিন মিনিট আগে ঋতুপর্ণা বাঁ-পায়ের অসাধারণ আলতো চিপে গোলকিপারের ওপর দিয়ে বল জড়িয়ে দেন জালে।

বিরতির পর বাংলাদেশ ঝড়ে লন্ডভন্ড হয়েছে লঙ্কান শিবির। এই অর্ধে হয়েছে আরও ৮টি গোল। ৪৭ মিনিটে প্রায় ৪০ গজ দূর থেকে আঁখি খাতুনের নেওয়া শট গোলকিপারের হাত ছুঁয়ে জড়িয়ে যায় জালে। ৪৯ মিনিটে সাজেদা আক্তার রিপা লক্ষ্যভেদ করেন। ৫৪ মিনিটে আফিদা খন্দকার দূরপাল্লার শটে সপ্তম গোল করে সমর্থকদের আনন্দ আরও বাড়িয়ে দেন।

৭০ মিনিটে আফিদা অষ্টম গোল করেন। ৭৭ মিনিটে আনুচিং মোগিনি নবম গোল করে দলকে বড় ব্যবধানে জিততে সহায়তা করেন। তখনও বাংলাদেশের গোলক্ষুধা মেটেনি। ৮৩ মিনিটে আফিদা খন্দকার হ্যাটট্রিক করে বসেন। এর দুই মিনিট পর উন্নতি খাতুন দলের হয়ে ১১তম গোল করে বড় জয়ে ভূমিকা রাখেন। ম্যাচ শেষ হওয়ার তিন মিনিট আগে শাহেদা আক্তার রিপা জালে বল জড়িয়ে হ্যাটট্রিক পূর্ণ করেন। ফাইনালের আগে এমন বড় ব্যবধানে জয় নিশ্চয়ই আত্মবিশ্বাস জোগাবে লাল-সবুজ জার্সিধারীদের।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ

এক ক্লিকে বিভাগের খবর